সারাবিশ্বের সাথে বাংলাদেশেও একযোগে দিনাজপুরেও পালিত হলো ব্যতিক্রমী অনুষ্ঠান “জলবায়ু ধর্মঘট“

প্রিয় দিনাজপুর

শিমুল, দিনাজপুর জেলা প্রতিনিধিঃ

জলবায়ু সচেতনতায় কাজ করতে এবং বাসযোগ্য পৃথিবী গড়তে সারাবিশ্বের সাথে একযোগে দিনাজপুরেও পালিত হলো ব্যতিক্রমী অনুষ্ঠান “জলবায়ু ধর্মঘট“।

আজ সকালে বিএসবি দিনাজপুর শাখার আয়োজনে জেলা প্রশাসকের কার্য্যালয়ের সন্মুখ সড়কে ঘন্টাব্যাপী ধর্মঘটের ব্যানার হাতে দাঁড়িয়েছিলো সংগঠনের সেচ্ছাসেবক শিক্ষর্থীরা। এসময় অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন দিনাজপুরের জেলা প্রশাসক মো: মাহমুদুল আলম।

এছাড়াও বিশেষ অতিথি ছিলেন, নাগরিক উদ্দ্যোগ দিনাজপুরের সভাপতি আবুল কালাম আজাদ, সাংগঠনিক সম্পাদক অদ্যাপক আব্দুস সবুর, শিক্ষা বোর্ডের কর্মকর্তা রেজাউল করিম। অনুষ্ঠানটি সঞ্চালনা করেন বিএসবি দিনাজপুর ডিস্ট্রিক ক্যাপ্টেন মো: হাসিবুল হাসান।

পরে তারা দিনাজপুর বড় ময়দানে কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারের পার্শ্বে বৃক্ষরোপন কার্য্যক্রমের আনুষ্ঠানিক উদ্ভোধন করে। পরবর্তীতে জেলার বিভিন্ন শতাধিক প্রতিষ্ঠানে পর্যায়ক্রমে বৃক্ষরোপন করা হবে ।

বিএসবি দিনাজপুর ডিস্ট্রিক ক্যাপ্টেন মো: হাসিবুল হাসান এ আন্দোলনের বিভিন্ন বিষয় উল্লেখ করে জানান, সারাবিশ্বের জলবায়ু কর্মীদের জন্য একটি গুরুত্বপূর্ণ দিন শুক্রবার ২৫ সেপ্টেম্বর ২০ । প্রায় ১৭০ টিরও বেশি দেশে এবং বাংলাদেশের ৬৪ জেলায় একইদিনে গ্রেটার থুনবার্গের আহবানে ফ্রাইডেস ফর ফিউচার প্লাটফর্ম থেকে একযোগে পালিত হলো ‘জলবায়ু ধর্মঘট’ ও জলবায়ু পরিবর্তন রোধে বিভিন্ন কর্মসূচি।

তৃতীয় বিশ্বের সবচেয়ে ঝুঁকিপূর্ণ দেশগুলোর মধ্যে বাংলাদেশ অন্যতম একটি দেশ। আমাদের দেশের তরুণরা এই বিষয়ে আগের চেয়ে অনেক বেশি সচেতন, কিন্তু বিশ্বনেতারা ও নীতিনির্ধারণী পর্যায়ে যারা আছেন তারা কতটুকু ভাবছেন এই মারাত্মক জলবায়ু ঝুঁকি নিয়ে? আর এই বিষয়ে সমাধানই বা কী?

এসব বিষয় মাথায় রেখে আয়োজন করতে যাচ্ছে একযোগে বাংলাদেশের ৬৪ জেলায় জলবায়ু ধর্মঘট ও বৃক্ষরোপণ অভিযান। এর সাথে থাকছে বিশ্বের সাতটি মহাদেশের প্রতিনিধিদের সম্মেলন। যেখানে চমক হিসেবে থাকছে আরো কিছু,আর যারা জলবায়ু ধর্মঘট ও বৃক্ষরোপণ অভিযানে নিজের জেলাকে নেতৃত্ব দিতে চান প্রত্যক্ষভাবে অংশ নিতে চান, তারা সকলেই আমাদের মতো করে কাগজে ক্লাইমেট বিষয়ক শ্লোগান লিখে নিজের ফেইসবুক আইডিতে পোস্ট করতে পারেন।

আপনার এই সামান্য টুকু অবদানই পারে এই পৃথিবীকে বসবাসের উপযুক্ত করে তুলতে। তাই আমিও দিনাজপুরকে রিপ্রেজেন্ট করছি আমার জায়গা থেকে। আশা করি আপনারাও আমাদের পাশে থাকবেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *